An allegory : Dialogues with Kabiguru Rabindranath Tagore

By Paramita Gharai

 

- ঠাকুর্দা, ও ঠাকুর্দা !

- বলো অমল ।

- তুমি আর গল্প বলো না কেন?

-আর লিখতে পারি না তো।

- তাই কখনো হয় নাকি?

- হয় হয়, বুড়ো হয়ে গেছি তো... মাথা আর ভাবনাচিন্তা করতে পারেনা। তাই লিখতে পারি না।

- উঁহু । তা না। তুমি আমাকে ভোলাচ্ছো। তুমি লিখতে পারো না তা ঠিক নয়। তুমি আসলে লিখছো না।

- তুমি কি করে বঝুলে অমল! আমি তো কাউকে কিচ্ছুটি বলিনি।

- আমি বিছানায় শুয়ে শুয়ে রাস্তার দিকে তাকিয়ে থাকি। দেখি সবকিছু কেমন পাল্টে যাচ্ছে।

-পাল্টে যাচ্ছে !

- হ্যাঁ ঠাকুর্দা সবকিছু পাল্টে যাচ্ছে। ঠিক আগের মতো নেই।

- আগের মতো নেই!

- গাছের পাতা আগের মতো সবুজ নেই, বেলি ফুলে আগের মতো সুন্দর গন্ধ নেই।

- না না অমল, সুধা বোধ হয় তোমাকে এখন অন্য কোন বাগান থেকে ফুল এনে দিচ্ছে।

-না না ঠাকুর্দা। সুধাও বলে।

-কি বলে সুধা?

- বলে সব ফুলের রঙ কেমন যেন মলিন হয়ে গেছে। পাতাগুলোও মলিন। প্রজাপতির রঙ হারিয়ে শুধুমাত্র সাদা। পাখিরা গান গাইতে ভুলে গেছে।

- অমল সুধা আর কি বলে?

- বলে সুন্দর পৃথিবীটা পাল্টে যাচ্ছে ঠার্কুদা।

 -অমল!

- ঠাকুর্দা , আমারও মনে হয়। ভারী বাতাস, বুক ভরে নিতে কষ্ট হয়। তৃষ্ণার জল বিস্বাদ। এমনকি সূর্যের লাল রঙটাও অনেক কম মনে হয়।

- ঠিক , ঠিক বলেছো অমল। আর এজন্যই আমি লিখি না।

- কিন্তু কেন ঠাকুর্দা?

- এটা আমার প্রতিবাদ অমল।

-প্রতিবাদ!

- মানষুকে বলেছিলাম মানষুকে ভালোবাসতে, বলেছিলাম প্রকৃতিকে ভালোবাসতে। শুনল কি? আমাকে কবির সম্মান দিয়ে আমার গান কবিতাকে বহন করল কেবলমাত্র। কিন্তু হৃদয় দিয়ে গ্রহণ করল কি?

- তাই তুমি লেখা বন্ধ করেছো ঠাকুর্দা?

- আমার লেখা তো সমাজের জন্য, মানুষের কল্যাণের জন্য। আমার লেখা তো অলঙ্কার না। প্রাত্যহিক জীবনে উপলব্ধির জন্য।

- রাগ কোরো না ঠাকুর্দা। তুমি লেখো। আরো লেখো। আমাদের জন্য লেখো। আমার মতো হাজার হাজার অমল তোমার লেখার মধ্যেই বাঁচতে শেখে। যাপিত জীবনকে উপলব্ধি করতে শেখে।

- তুমি, মানে তোমরা আমার লেখা এখনও পড়ো!

- পড়ি তো ঠাকুর্দা। তাই তো পৃথিবীতে এখনও পান্নার রঙ সবুজ , গোলাপ এখনও সুন্দর।

- অমল!

- যতদিন বাঙালী আর বাংলা ভাষা বেঁচে আছে, ততদিন তোমার লেখা চালিয়ে যেতে হবে ঠাকুর্দা, আমরা অমলরা  স্বপ্ন দেখব আর হাঁটব সেই পথ ধরে যে পথে সূর্যের রঙ হবে টকটকে লাল।

#Paramita Gharai may be contacted at enewstime2017@gmail.com

Facebook
linkedin
twitter
printerst
whatsapp